প্রধানমন্ত্রীর বিমানে ত্রুটির অভিযোগে গ্রেপ্তার ৭

গত ২৭ নভেম্বর হাঙ্গেরি যাওয়ার পথে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে বহনকারী বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের একটি বোয়িং যান্ত্রিক ত্রুটির কারণে তুর্কমেনিস্তানের আশখাবাত বিমানবন্দরে জরুরি অবতরণে বাধ্য হয়। উড়োজাহাজের ইঞ্জিন অয়েলের ট্যাংকের একটি নাট ঢিলে থাকায় ওই বিপত্তি ঘটে। মেরামত শেষে প্রায় ৪ ঘণ্টা পর হাঙ্গেরির রাজধানী বুদাপেস্টের উদ্দেশ্যে যাত্রা করে উড়োজাহাজটি।

এর পেছনে নাশকতা ছিল কি না, তা খতিয়ে দেখতে বিমান মন্ত্রণালয়, বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স ও বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষ তিনটি তদন্ত কমিটি করে ও মামলা দায়ের করা হয়।

মামলা হওয়ার দুই দিনের মাথায় বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের সাত কর্মকর্তাকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশের কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিট। ঢাকা মহানগর পুলিশের উপ কমিশনার (মিডিয়া) মাসুদুর রহমান আজ বৃহস্পতিবার সকালে বলেন, কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিট সাতজনকে গ্রেপ্তার করেছে।

ওই ঘটনার তিন দিনের মাথায় বিমানের পাঁচ প্রকৌশলীসহ ছয়জনকে সামিয়ক বরখাস্ত করা হয়। পরে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের তদন্ত কমিটির চূড়ান্ত প্রতিবেদনের ভিত্তিতে আরও তিন প্রকৌশলীকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়। বিভাগীয় তদন্তে ওই নয়জনের কর্তব্যে অবহেলা ও গাফিলতির প্রমাণ পাওয়া গেছে বলে মামলার এজাহারে উল্লেখ করা হয়।

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Lost Password