ইতালিতে ভূমিকম্পে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ২৪৭

ভূমিকম্পে ইতালির মধ্যাঞ্চলের পার্বত্য এলাকা যেন মৃত্যুপুরীতে পরিণত হয়েছে। ভূমিকম্পে নিহতের সংখ্যা ক্রমেই বাড়ছে। এখন পর্যন্ত ২৪৭ জন নিহত হওয়ার খবর জানিয়েছে দেশটির উদ্ধারকারী বাহিনী। তারা বলেছে, ভূমিকম্পে সাড়ে ৩শ’রও বেশি মানুষ আহত হয়েছেন বলে খবর মিলেছে। হতাহতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে।

মঙ্গলবার (২৩ আগস্ট) রাতে কাঁপিয়ে দেওয়া ৬ দশমিক ২ মাত্রার এ ভূমিকম্পে হতাহত ও ক্ষয়ক্ষতির এ খবর বৃহস্পতিবার (২৫ আগস্ট) দিয়েছে স্থানীয় সংবাদমাধ্যম। তারা বরাত দিচ্ছে স্থানীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় ও অন্যান্য বাহিনীর।

সংবাদমাধ্যম বলছে, ভূমিকম্পের পর ৪ হাজার ৩০০ জনেরও বেশি উদ্ধারকর্মী কাজ শুরু করেন। তারা বিভিন্ন এলাকা থেকে অনেকের মরদেহ উদ্ধার করেন। অনেককে মুমূর্ষু অবস্থায় উদ্ধারের পর হাসপাতালে মারা যায়। সবমিলিয়ে শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত নিহতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২৪৭। আর আহত ৩৬৮ জনেরও বেশি। উভয় সংখ্যাই বাড়তে পারে।

উদ্ধারকারী বাহিনী বলছে, নিহতের মধ্যে কেবল রেইতি প্রদেশেরই রয়েছেন ১৯০ জন। এদের মধ্যে বেশিরভাগই ঐতিহাসিক আমেত্রিক নগরীর। ওই নগরীর তিন-চতুর্থাংশ ধ্বংস হয়ে গেছে। আর আসকোলি পিসেনো প্রদেশে নিহত হয়েছেন ৫৭ জন।

নিহতদের মধ্যে রয়েছে ১৮ মাস বয়সী এক শিশুও। মারিসল পিয়েরমারিনি নামে ওই শিশুর মা মার্তিনা তুরসো ২০০৯ সালে ল্যকুইলায় ভূমিকম্পে বেঁচে গিয়ে ভয়ে সেখান থেকে রেইতিতে চলে যান। কিন্তু এবার সেই রেইতিতে ভূমিকম্পে তিনি বেঁচে গেলেও শেষ রক্ষা হলো না তার সন্তানের।

সরকারের পক্ষ থেকে বলা হচ্ছে, উদ্ধারকার্যে প্রশাসন সর্বোচ্চ চেষ্টা করছে। এজন্য প্রয়োজনীয় ভারী যন্ত্রপাতি ব্যবহারেরও নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Lost Password