সুচিত্রা সেনের জন্মদিনে পাঁচ দিনব্যাপী চলচ্চিত্র উৎসব

৬ এপ্রিল সুচিত্রা সেনের ৮৫তম জন্মদিন। এই মহানায়িকার জন্মদিনটি উৎসবের সাথে পালনের জন্য পাবনায় শুরু হতে যাচ্ছে পাঁচ দিনব্যাপী সুচিত্রা সেন চলচ্চিত্র উৎসব। সুচিত্রা সেনের পৈত্রিক বাড়িতে তার ৮৫তম জন্মদিনের কেক কাটা ও র‌্যালীর মধ্য দিয়ে এ উৎসবের উদ্বোধন করা হবে।

এরপর সন্ধ্যায় শহরের মুক্তিযোদ্ধা রফিকুল ইসলাম বকুল পৌর মুক্তমঞ্চে সুচিত্রা সেন অভিনীত চলচ্চিত্রের গান, আলোচনা সভা ও চলচ্চিত্র প্রদর্শিত হবে। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি থাকবেন সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব আকতারী মমতাজ। মঙ্গলবার দুপুরে পাবনা জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে জেলা প্রশাসন আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানান আয়োজকরা। সংবাদ সম্মেলনে আরো জানানো হয়, উৎসব উদ্বোধন করবেন পাবনা সদর আসনের সাংসদ গোলাম ফারুক প্রিন্স।

প্রথমদিনের অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি থাকবেন পুলিশ সুপার আলমগীর কবির, বাংলাদেশ চলচ্চিত্র পরিচালক সমিতির মহাসচিব মুশফিকুর রহমান গুলজার, যুগ্ম মহাসচিব এস এ হক অলিক। অতিথি থাকবেন চলচ্চিত্র অভিনেত্রী অরুণা বিশ্বাস, অভিনেতা নিরব, অভিনেত্রী তানহা।

উল্লেখ্য, ১৯৩১ সালের ৬ এপ্রিল সুচিত্রা সেন বাংলাদেশের পাবনায় জন্মগ্রহন করেন। শৈশব কেটেছে সেখানেই। বাবা করুণাময় দাশগুপ্ত ছিলেন স্থানীয় একটি বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক। বাবা-মায়ের পঞ্চম সন্তান ছিলেন সুচিত্রা। ১৯৪৭ সালে কলকাতার বিশিষ্ট বাঙালি শিল্পপতি আদিনাথ সেনের ছেলে দীবানাথ সেনের সঙ্গে বিয়ে হয় তাঁর। তাঁদের ঘরে একমাত্র সন্তান মুনমুন সেন। ১৯৫২ সালে তিনি চলচ্চিত্র জগতে প্রথম পা রাখেন। তার অভিনীত প্রথম চলচ্চিত্র ‘শেষ কোথায়’। তবে চলচ্চিত্রটি আর মুক্তি পায়নি। এরপর ১৯৫৩ সালে মহানায়ক উত্তম কুমারের সঙ্গে সাড়ে চুয়াত্তর চলচ্চিত্র করে সাড়া ফেলে দেন চলচ্চিত্র অঙ্গনে। সুচিত্রা সেন বাংলা ও হিন্দি চলচ্চিত্রে অভিনয় করেন।

তাঁর অভিনীত প্রথম হিন্দি চলচ্চিত্র দেবদাস (১৯৫৫)। সুচিত্রা সেন ১৯৭৮ সালে প্রণয় পাশা চলচ্চিত্র করার পর লোকচক্ষুর অন্তরালে চলে যান। এরপর থেকে তিনি আর জনসমক্ষে আসেননি।

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Lost Password