পর্তুগাল-মেক্সিকো সেমিতে

কাজানে দর্শকে ঠাসা মাঠে অপর খেলায় রাশিয়াই প্রথম গোল করে এগিয়ে গিয়েছিল। সেমিতে ওঠার জন্য তাদের জিততেই হতো। এতে ২৫ মিনিটের সময় আলেকজান্ডার সামেদভের গোল তাদের আশান্বিতও করে। কিন্তু মেক্সিকো তাদের উল্লাস থামিয়ে দেয় দ্রুতই। ৩০ মিনিটের সময় উত্তর আমেরিকার দলটি সমতা ফিরেয়ে আনে। নেস্তর আরাউজো হেডে গোলটি করেন।

বিরতির পর স্বাগতিকদের হতাশা বাড়ান হারভিং লোজানো। গোলরক্ষক ইগর আকিনভের ভুলেই গোলটি হয়। এরপর রাশিয়ার ইউরি ঝিরকভ লালকার্ড দেখে বহিস্কৃত হলে তাদের সব আশা শেষ হয়ে যায়। এ আসরেই এটিই প্রথম লালকার্ড।

স্বাগতিক রাশিয়াকে দর্শক সারিতে পাঠিয়ে দিলো মেক্সিকো। এতে তারা স্থান করে নিয়েছে সেমিফাইনালে। তবে গ্রুপ সেরা হতে পারেনি। সে জায়গাটা দখল করে নিয়েছে ফেভারিট পর্তুগাল। তারা ৪-০ গোলের বড় ব্যবধানে নিউজিল্যান্ডকে হারিয়ে গ্রুপ সেরা হিসেবেই উঠে গেছে সেমিফাইনালে।

এ গ্রুপের খেলায় শনিবার সেইন্ট পিটার্সবার্গে পেনাল্টি থেকে প্রথম গোলটি করেন ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো। আগেই বিদায় নিশ্চত হওয়া নিউজিল্যান্ড তবুও লড়াই চালিয়ে যেতে থাকে। কিন্তু তিন মিনিটের ব্যবধানে পর্তুগালের পক্ষে দ্বিতীয় গোল করেন বার্নারদো সিলভা।

প্রথমার্ধ ২-০তেই শেষ হয়। এরপর কিউইরা আর গোল না খাওয়ার জন্য খেলতে থাকে। এতে ৮০ মিনিট পর্যন্ত সফল হয় তারা। কিন্তু এরপরে আন্দ্রে সিলভা তৃতীয় গোল করে নিউজিল্যান্ডের সব আশা শেষ করে দেন। ফার্নান্দো সান্তোসের শিষ্যরা গোল গড় বাড়াতে চেষ্টা করতে থাকে। এতে শেষ মুহুর্তে আরেকটি গোল তুলে নেন ন্যানি।

 

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Lost Password