বাজেট নিয়ে বিপিজিএমইএর সংবাদ সম্মেলন

নিত্যপ্রয়োজনীয় প্লাস্টিকের তৈরি তৈজসপত্র ভ্যাট-মুক্ত করার দাবি করেছে বাংলাদেশ প্লাস্টিক দ্রব্য প্রস্তুত ও রপ্তানিকারক সমিতি (বিপিজিএমইএ)।

রাজধানীর পুরানা পল্টনে বিপিজিএমইএর কার্যালয়ে আজ সোমবার দুপুরে আগামী অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেট নিয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এসব দাবি জানায় ব্যবসায় সংগঠনটির নেতারা। এতে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন বিপিজিএমইএর সভাপতি জসিম উদ্দিন।

বিপিজিএমইএর সভাপতি জসিম উদ্দিন বলেন, মানুষের নিত্যপ্রয়োজনীয় প্লাস্টিকের তৈজসপত্রের মধ্যে আছে থালাবাসন, জগ, মগ, বালতি, ময়লার ঝুড়ি, টিফিন ক্যারিয়ার, গ্লাস, বাটি, হাতপাখা ইত্যাদি। এসব পণ্য শহরের বস্তি ও গ্রামের নিম্ন আয়ের মানুষজন হকার ও ফেরিওয়ালার কাছ থেকে কিনে থাকেন। কিন্তু হকার ও ফেরিওয়ালার কাছ থেকে তো আর ভ্যাট আদায় করা সম্ভব না।

এ ছাড়া রিসাইক্লিং খাত এবং প্লাস্টিক ও রাবারের তৈরি চপ্পল ও পাদুকার ওপর থেকে ভ্যাট অব্যাহতি চেয়েছে সংগঠনটি।এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন সংগঠনের সহসভাপতি গিয়াসউদ্দিন আহমেদ ও গোলাম কিবরিয়া, সাবেক সভাপতি ইউসুফ আশরাফ, এ এস এম কালাম উদ্দিন, শাহেদুল ইসলাম প্রমুখ।

প্লাস্টিক পণ্য রপ্তানিতে আগামী দুই বছরের জন্য উৎসে কর অব্যাহতি দাবি করেন বিপিজিএমইএ সভাপতি। তিনি বলেন, প্লাস্টিক হচ্ছে উদীয়মান শিল্প। প্লাস্টিক পণ্য রপ্তানি এখনো প্রাথমিক পর্যায়ে আছে। তবে সম্ভাবনাময় এই খাতে সুবিধা দিয়ে প্রধান রপ্তানি পণ্যের একটি করার সুযোগ আছে। এ জন্যই আমরা আগামী দুই বছরের জন্য উৎসে কর মওকুফ চাইছি।

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Lost Password