কাল থেকে পবিত্র রমজান

আগামীকাল রোববার থেকে শুরু হচ্ছে পবিত্র রমজান মাস। গতকাল সন্ধ্যায় বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদে ইসলামিক ফাউন্ডেশনের সম্মেলন কক্ষে চাঁদ দেখা কমিটির বৈঠক শেষে এ ঘোষণা দেয়া হয়। ধর্মমন্ত্রী মতিউর রহমানের সভাপতিত্বে এ বৈঠক থেকে জানানো হয় শুক্রবার পবিত্র রমজান মাসের চাঁদ দেশের কোথাও দেখা যায়নি।

তাই রোববার থেকে পবিত্র রমজান মাস শুরু হবে। সভায় ধর্মসচিব আবদুল জলিলসহ ইসলামিক ফাউন্ডেশনের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। সভায় সারা দেশের জেলা এবং উপজেলা থেকে আসা চাঁদ দেখার তথ্য পর্যালোচনা করে এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। রমজান ইসলাম ধর্মাবলম্বীদের কাছে পবিত্র একটি মাস।

এই মাসে সিয়াম সাধনার পর ঈদুল ফিতর উদযাপন করে মুসলিম সমপ্রদায়। রহমত, বরকত ও মাগফিরাতের মাস পবিত্র রমজান। রোজাকে আরবি ভাষায় সিয়াম বা সাওম, আর ফার্সিতে রোজা বলা হয়। সাওম অর্থ বিরত থাকা। আর শরীয়তের পরিভাষায় ফরজ রোজা রাখার নিয়তে সুবহে সাদিক থেকে সূর্যাস্ত পর্যন্ত জিহ্বা অর্থাৎ কোনো কিছু পানাহার এবং স্ত্রী সহবাস থেকে বিরত থাকার নাম সাওম বা রোজা। মহান আল্লাহ্‌পাক রাব্বুল আলামীন মুমিন বান্দাদিগকে তাঁর কাছে টেনে নেয়ার জন্য এই পবিত্র মাসের রোজাকে তিনভাগে বিভক্ত করেছেন।

প্রথম দশদিন রহমতের, দ্বিতীয় দশদিন মাগফিরাতের এবং তৃতীয় দশদিন দোজখ থেকে মুক্তির জন্য। আল্লাহ্‌ পাকের নির্দেশে আকাশের মেঘমালা বছরের প্রথমে যে বারিধারা বর্ষণ করে থাকে, তাতে মৃত জমিন যেমন সুজলা-সুফলা, শস্য-শ্যামল হয়ে পৃথিবীকে নবশক্তিতে বলিয়ান করে থাকে। অনুরূপভাবে মাহে রমজানের রোজা মুমিন বান্দাদের আত্মাকে নবশক্তিতে বলিয়ান করে। ইসলামের প্রথম স্তম্ভ নামাজ যেমন মুমিনদেরকে শিক্ষা দেয় শৃঙ্খলা ও নিয়মানুবর্তী হওয়ার তেমনি মাহে রমজানের রোজা শিক্ষা দেয়, তাক্‌ওয়া, সহিষ্ণুতা ও সংযম। রমজানে ধর্মপ্রাণ মুসলমানরা তারাবিহ নামাজে অংশ নেন।

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Lost Password