শিক্ষার্থীর মৃত্যু, হাসপাতালে ভাঙচুর

ভুল চিকিৎসায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের এক ছাত্রীর মৃত্যুর অভিযোগে আজ বৃহস্পতিবার বিকেলে রাজধানীর গ্রিন রোডের সেন্ট্রাল হাসপাতালে ব্যাপক ভাঙচুর করা হয়েছে। ওই ছাত্রীর নাম আফিয়া জাহিন (২০)। তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণিবিদ্যা বিভাগের প্রথম বর্ষের ছাত্রী ছিলেন।

তবে সেন্ট্রাল হাসপাতালের অন্যতম পরিচালক অধ্যাপক মতিউর রহমান বলেন, আফিয়াকে ভুল চিকিৎসা দেওয়া হয়নি। তিনি ডেঙ্গুজ্বরে আক্রান্ত ছিলেন। লিউকোমিয়া ও বোন ম্যারোর সমস্যা থাকতে পারে-এমন সন্দেহ থাকায় তাঁকে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করাতে বলা হয়েছিল। কিন্তু চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছিল ডেঙ্গুজ্বরের। আফিয়ার বড় বোন ও বিশ্ববিদ্যালয়ের একাধিক শিক্ষক অভিযোগ করেন, আফিয়া ডেঙ্গুজ্বরে আক্রান্ত হলেও তাঁকে চিকিৎসা দেওয়া হয় ব্লাড ক্যানসারের।

পুলিশ ও হাসপাতাল সূত্র জানায়, আফিয়া আজিমপুরে মেস ভাড়া নিয়ে থাকতেন। ছয় দিন আগে তিনি জ্বরে আক্রান্ত হন। অবস্থার অবনতি হওয়ায় গতকাল বুধবার সকালে গ্রিন রোডের সেন্ট্রাল হাসপাতালে নেওয়ার পর তাঁকে মেডিসিন বিভাগে ভর্তি করা হয়।

আফিয়াকে মৃত ঘোষণার আগেই দুপুরে তাঁর মৃত্যুর খবর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ছড়িয়ে পড়ে। এ সময় বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা হাসপাতালে ছুটে যান।

বিকেলে দেখা যায়, সেন্ট্রাল হাসপাতালের অভ্যর্থনা কক্ষ ও জরুরি বিভাগের কয়েকটি কক্ষের সামনে ভাঙা কাচ ছড়িয়ে-ছিটিয়ে পড়ে আছে। সেখানে পুলিশ পাহারা বসানো হয়েছে। জরুরি বিভাগে আফিয়ার জন্য ছাত্র-শিক্ষকেরা কাঁদছিলেন।

রাত সাড়ে আটটায় যোগাযোগ করা হলে ধানমন্ডি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবদুল লতিফ বলেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষ থেকে কয়েকজন চিকিৎসক ও নার্সের বিরুদ্ধে ভুল চিকিৎসার অভিযোগে ধানমন্ডি থানায় মামলা হচ্ছে।

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Lost Password