নতুন সভাপতি সফিউল, সহসভাপতি পদ নিয়ে হট্টগোল

বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় আগামী দুই বছরের জন্য ব্যবসায়ীদের শীর্ষ সংগঠন বাংলাদেশ শিল্প ও বণিক সমিতি ফেডারেশনের (এফবিসিসিআই) সভাপতি হলেন তৈরি পোশাক রপ্তানি খাতের ব্যবসায়ী সফিউল ইসলাম মহিউদ্দিন।

এদিকে সহসভাপতি পদে দুজনকে নির্বাচিত করতে আগ্রহী সব প্রার্থীকে নিয়ে গতকাল মঙ্গলবার বিকেলে এফবিসিসিআই কার্যালয়ে এক সমঝোতা বৈঠকের আয়োজন করা হয়। সেখানে তুমুল হট্টগোল শেষে আওয়ামী লীগের দুজন সাংসদের ছেলেকে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হওয়ার সুযোগ তৈরি করে দেওয়া হয়।

অন্যদিকে সংগঠনটির প্রথম সহসভাপতি হয়েছেন গোপালগঞ্জ চেম্বারের শেখ ফজলে ফাহিম ও সহসভাপতি হয়েছেন হিমাগার মালিক সমিতির মো. মুনতাকিম আশরাফ। তাঁরা দুজনই আওয়ামী লীগের বর্তমান দুই সাংসদের ছেলে। শুরুতে দুই সহসভাপতি পদে একাধিক প্রতিদ্বন্দ্বী থাকলেও শেষ পর্যন্ত সবাই সরে দাঁড়ান। ফলে তাঁরা বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হন।

জানা গেছে, সহসভাপতি পদে চেম্বারের দুজন ও অ্যাসোসিয়েশনের সাতজন প্রার্থী মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছিলেন। এরপর সমঝোতা করতে দুই পক্ষ আলাদাভাবে বৈঠকে বসে। অ্যাসোসিয়েশনের বৈঠকে প্রার্থীদের মধ্যে বেশ হট্টগোল হয়। চেম্বারের প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী সমঝোতা মেনে নিতে বাধ্য হন। পরে নির্বাচনী বোর্ডের প্রধান ও সাংসদ আলী আশরাফ সভাপতি হিসেবে সফিউল ইসলাম এবং প্রথম সহসভাপতি হিসেবে শেখ ফজলে ফাহিম ও সহসভাপতি হিসেবে মুনতাকিম আশরাফকে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জয়ী ঘোষণা করেন। সহসভাপতি হিসেবে নির্বাচিত মুনতাকিম আশরাফ সাংসদ আলী আশরাফের ছেলে।

এফবিসিসিআইয়ের পরিচালক পদে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয় গত রোববার। সভাপতি ও দুই সহসভাপতি পদের নির্বাচন হয় গতকাল। এফবিসিসিআই দেশের পণ্যভিত্তিক অ্যাসোসিয়েশন ও এলাকাভিত্তিক চেম্বারের যৌথ সংগঠন। এসব সংগঠন থেকে মনোনীত ও নির্বাচিত ৬০ জন পরিচালকের ভোটে সভাপতি ও সহসভাপতি নির্বাচিত হওয়ার কথা। নিয়ম অনুযায়ী, এবার চেম্বার থেকে প্রথম সহসভাপতি ও অ্যাসোসিয়েশন থেকে সহসভাপতি হয়েছেন।

মুনতাকিম আশরাফের বিরুদ্ধে প্রার্থী হয়েছিলেন খন্দকার রুহুল আমিন, আবু মোতালেব, হাবিব উল্লাহ ডন, মীর নিজাম উদ্দিন আহমেদসহ মোট আটজন। এফবিসিসিআইয়ের কার্যালয়ে সমঝোতা বৈঠকে আওয়ামী লীগ সমর্থক একজন পরিচালক সরকারের ইচ্ছার কথা উল্লেখ করে অন্যদের সরে যাওয়ার পরামর্শ দেন। নইলে এফবিসিসিআইয়ের কার্যালয়ে তাঁদের আটকে রাখা হবে বলেও হুমকি দেন। এ নিয়ে হট্টগোল শুরু হয়, পরে প্রতিবাদের মুখে ওই পরিচালক ক্ষমা চান। এরপর মুনতাকিম আশরাফের বিরুদ্ধে হাবিব উল্লাহ ডনকে সমর্থন দিয়ে অন্য প্রার্থীরা সরে যান। অবশ্য শেষ পর্যন্ত হাবিব উল্লাহ ডনও আর প্রার্থী থাকেননি।

এফবিসিসিআইতে এ সময় উপস্থিত ছিলেন বিকেএমইএর সভাপতি এ কে এম সেলিম ওসমান, ব্যাংকের উদ্যোক্তাদের সমিতি বিএবির চেয়ারম্যান নজরুল ইসলাম মজুমদার, এফবিসিসিআইয়ের সহসভাপতি মাহবুবুল আলম প্রমুখ।

সহসভাপতি প্রার্থী আবু মোতালেব বলেন, নিয়মকানুন না মেনে মুনতাকিম আশরাফকে বিজয়ী ঘোষণা করা হয়েছে। আমি নিজে আনুষ্ঠানিকভাবে প্রার্থিতা প্রত্যাহার করিনি।

সহসভাপতি পদে নির্বাচিত মুনতাকিম আশরাফ নিজে কুমিল্লা (উত্তর) জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও চান্দিনা উপজেলা আওয়ামী লীগের জ্যেষ্ঠ সহসভাপতি।

Login

Welcome! Login in to your account

Remember me Lost your password?

Lost Password